1. dailydeshbidesh@gmail.com : admin :
  2. deshbiseh@gmail.com : Adbul Wahid : Adbul Wahid
শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ০৯:৩৯ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
জগন্নাথপুর সরকারী বালিকা বিদ্যালয়ের পুরাতন মালামাল কম দামে গোপনে বিক্রি করায় জনতা কর্তৃক আটক।। জগনাথপুরে সাংবাদিকদের সাথে উপজেলা প্রশাসনের প্রেস ব্রিফিং জগন্নাথপুরে পেক আইডি দিয়ে সংক্রান্ত পরিবারের বিরুদ্ধে মিথ্যা অপ-প্রচারে এলাকাবাসীর নিন্দা , থানায় জিডি দায়ের ।। জগন্নাথপুরের হবিবপুরে ভূমি সংক্রান্ত বিষয়কে কেন্দ্র করে গ্রামের মান ক্ষুন্ন করায় প্রতিবাদ সভা।। যুক্তরাজ্য প্রবাসী কে মোবাইল ফোনে হুমকি দিল জার্মান প্রবাসী জগন্নাথপুরে যুক্তরাজ্য প্রবাসীকে মিথ্যা অভিযোগ দিয়ে হয়রানি, এলাকাবাসীর নিন্দা।। জগন্নাথপুরে পুলিশের বিশেষ অভিযানে গ্রেফতার- ৫ জগন্নাথপুরে মিথ্যা মামলাসহ বিভিন্নভাবে হয়রানির প্রতিবাদে গ্রামবাসীর তীব্র নিন্দার ঝড় # জগনাথপুরে মাদ্রাসার ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন অনুষ্ঠান সম্পন্ন

জগন্নাথপুরে সরকারী নির্দেশ অমান্য করে সরকারী খালে ঘর নির্মান ব্যবস্থা নিচ্ছেনা প্রশাসন।।

  • আপডেটের সময় : বৃহস্পতিবার, ২৯ ডিসেম্বর, ২০২২
  • ২০৩

মোঃ আব্দুল ওয়াহিদ,

জগন্নাথপুর সুনামগঞ্জ
থেকে :-

সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুরে সরকারী খাল জবর দখল করে নিয়েছে প্রভাবশালী মহল। সরকারী খাল দখল করে নির্মান করছে ঘর-বাড়ী, দালান কোটা। অনেকেই বাঁশ পুতে জায়গার সীমানা নির্ধারণ করে রেখেছে। আবার অনেকেই পাকা সীমানাচীর নির্মাণ দখলে নিয়েছেন। আবার কেউ কেউ সরকারি খাল রকম ভূমি দখল করে বিক্রি করে হাতিয়ে নিচ্ছে লক্ষ লক্ষ টাকা। উপজেলা প্রশাসনের নাকের ডগায় সদর ভূমি অফিসের নিকটে পৌর শহরের গুরুত্বপূর্ণ এলাকা বণিক পাড়ায় বাসুদেব বাড়ী খাল। এ খালটি দীর্ঘদিন ধরে দলবাজদের কবলে পড়ে অবৈধ ভাবে দখল কেনাবেচা হচ্ছে। বর্তমানে নতুন করে অবৈধ জবর-দখল হওয়ায় এলাকাবাসীর মধ্যে ক্ষোভের সৃষ্টি হয় এবং সদর ভূমি অফিসে অভিযোগ দেন।
জানাগেছে, উপজেলার পৌরশহরের বাসুদেববাড়ী এলাকার মধ্য দিয়ে খালটি প্রবাহিত। উক্ত খাল বর্ষা মৌসুমে পানি নিষ্কাসনের একমাত্র পথ। খালটি এভাবে দখল হওয়ায় এলাকার পানি নিষ্কাসনে বাঁধা গ্রস্ত হয়ে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়। যার ফলে বর্ষা মৌসুমে এলাকা প্লাবিত হয় এবং জমে থাকা ময়লা আবর্জনা স্তূপে অস্বাস্থ্যকর পরিবেশের সৃষ্টি হয়েছে যেন দেখার কেউ নেই। উল্লেখ্য, খাস-খালটি জবর দখল হলে পৌরসভা ও উপজেলা প্রশাসন খালটি দখল মুক্ত করে পৌরসভার ড্রেইন নির্মান করার উদ্যোগ গ্রহন করেন। উপজেলা সহকারী কমিশনার ( ভূমি) অফিসের সার্ভেয়ার মাফঝোক করে কোন কোন স্থানে লাল পাতাকা স্থাপন করে। এরই মধ্যে পাতাকা উঠিয়ে মৃত সুভাষ কর্মকার এর পুত্র শ্যামল কর্মকার পাকা সীমানা দেওয়াল ও টিনসেট ঘর নির্মান করে। অদৃশ্য কারনে দখলবাজ শ্যামল কর্মকারের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা গ্রহন না করায় এলাকাবাসীর মধ্যে চরম ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। বর্ষা মৌসুমের আগেই জবর-দখলকারীদের কাছ থেকে খালটি উন্মুক্ত করতে না পারলে এলাকার পানি নিষ্কাসনে চরম বাঁধা সৃষ্টি হবে। তাই এলাকাবাসী খালটি জনস্বার্থে উন্মুক্ত করার জন্য উপজেলা প্রশাসনের সুদৃষ্টি কামনা করেছেন। এব্যাপারে জগন্নাথপুর সদর ইউনিয়ন ভূমি সহকারী কর্মকর্তা কাজী সামছুল হুদা সোহেল বলেন, সরকারী খাল রকম ভূমিতে ঘর নির্মানের খবর পেয়ে সেখানে গিয়ে নির্মান কাজ বন্ধ রাখতে বলি। আমাদের নির্দেশ অমান্য করে শ্যামল কর্মকার ঘর নির্মান করেছে। বিষয়টি উপজেলা নির্বাহি কর্মকর্তাকে অবগত করেছি। খাল দখল ও সীমানা নির্ধারনের জন্য গত ২৫ আগষ্ট জগন্নাথপুর গ্রামের মৃত পার্বতী চন্দ্র দেব এর পুত্র প্রহল্লাদ দেব জেলা প্রশাসক বরাবর শ্যামল কর্মকার ও অরবিন্দু দাস এর বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেন। জেলা প্রশাসক ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য উপজেলা নির্বাহি কর্মকর্তার নিকট প্রেরন করেন। উপজেলা নির্বাহি কর্মকর্তা সরকারী খাল ও প্রহল্লাদ দেব এর ভূমির সীমানা নির্ধারনের জন্য সহকারী কমিশনার (ভূমি) এর কার্যালয়ের সার্ভেয়ারকে নির্দেশ প্রদান করেন। খাল দখল এর ব্যাপারে শ্যামল কর্মকার বলেন আমি ১৪ লক্ষ টাকা দিয়ে সুজিত কুমার দেব ও সঞ্জীত দেব এর কাছ থেকে রেকর্ড কৃত ২ শতক ভূমি দলিল মূলে খরিদ করেছি। পৌরসভার সার্ভেয়ার সতীশ গোস্বামী, সাবেক কমিশনার ও বর্তমান কমিশনার, পাড়ার গণ্যমান্য ব্যক্তিদের উপস্থিতিতে মাফঝোক করে দেওয়ার পর খরিদ করেছি। এই বিষয়ে সার্ভেয়ার মুহিবুর রহমান বলেন দখলকারীদের কবল থেকে সরকারী খাল উচ্ছেদের মাধ্যমে উদ্ধার করা হবে। এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সাজেদুল ইসলাম বলেন বিষয়টি আমি দেখতেছি।

পোস্টটি আপনার সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

Comments are closed.

এই ধরনের আরো সংবাদ দেখুন
© All rights reserved © 2021 দৈনিক দেশ বিদেশ
Design and developed By: Syl Service BD