1. dailydeshbidesh@gmail.com : admin :
  2. deshbiseh@gmail.com : Adbul Wahid : Adbul Wahid
শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ১০:০১ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
জগন্নাথপুর সরকারী বালিকা বিদ্যালয়ের পুরাতন মালামাল কম দামে গোপনে বিক্রি করায় জনতা কর্তৃক আটক।। জগনাথপুরে সাংবাদিকদের সাথে উপজেলা প্রশাসনের প্রেস ব্রিফিং জগন্নাথপুরে পেক আইডি দিয়ে সংক্রান্ত পরিবারের বিরুদ্ধে মিথ্যা অপ-প্রচারে এলাকাবাসীর নিন্দা , থানায় জিডি দায়ের ।। জগন্নাথপুরের হবিবপুরে ভূমি সংক্রান্ত বিষয়কে কেন্দ্র করে গ্রামের মান ক্ষুন্ন করায় প্রতিবাদ সভা।। যুক্তরাজ্য প্রবাসী কে মোবাইল ফোনে হুমকি দিল জার্মান প্রবাসী জগন্নাথপুরে যুক্তরাজ্য প্রবাসীকে মিথ্যা অভিযোগ দিয়ে হয়রানি, এলাকাবাসীর নিন্দা।। জগন্নাথপুরে পুলিশের বিশেষ অভিযানে গ্রেফতার- ৫ জগন্নাথপুরে মিথ্যা মামলাসহ বিভিন্নভাবে হয়রানির প্রতিবাদে গ্রামবাসীর তীব্র নিন্দার ঝড় # জগনাথপুরে মাদ্রাসার ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন অনুষ্ঠান সম্পন্ন

সারা জীবন আ’লীগ করে নৌকার প্রার্থীর যোগ্য নন-আমির হোসেন রেজা

  • আপডেটের সময় : রবিবার, ৭ নভেম্বর, ২০২১
  • ৭৬

সুরুজ্জামান শিমুল,সুনামগন্জ প্রতিনিধি

সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার সুরমা ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান। সাবেক সদর থানা আওয়ামীলীগের সাধারণত সম্পাদক। জেলা আওয়ামীলীগের কার্যকরী কমিটির সাবেক সদস্য। জেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি আমির হোসেন রেজা দীর্ঘ পঞ্চাশ বছর আওয়ামীলীগ রাজনীতির সাথে ওতোপ্রোতো ভাবে জড়িত। জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও সাধারন সম্পাদকের আস্থাভাজন হতে পারেননি বলে এবার ও চেষ্টা তদবির করে সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার সুরমা ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে নৌকার প্রার্থী তালিকায় মনোনীত হতে পারেননি। সুরমা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ জনপ্রিয় ও

যৌগ্য ব্যক্তি হিসাবে তার নাম দলের প্রার্থী তালিকায় প্রস্তাব রাখলেও জেলার নেতৃবৃন্দ তৃণমূলের নেতাকর্মী ও সমর্থকেদের দাবীর প্রতি বৃদ্ধাঙ্গুলি প্রদর্শন করে তার নাম বাদ দিয়ে কেন্দ্রে নতুন তালিকা সরবরাহ করেন।
এ ব্যাপারে সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান আমির হোসেন রেজার সাথে এ প্রতিবেদনের কথা হলে তিনি দুঃখ ও ক্ষোভ নিয়ে বলেন, দীর্ঘ পঞ্চাশ বছরের উপরে দলের সাথে সম্পৃক্ত থেকে দলের নেতৃবৃন্দের কাছ থেকে এমন বিমাতা সুলভ দুর্ব্যবহার কখনো আশা করিনি। প্রায় সত্তর বয়সের জীবনে আওয়ামীলীগ ছাড়া কোন দল করার কথা ভাবিনি। এ পৌঢ় বয়সে এসে যদি দলের নব্য নেতাদের কাছে ইউপি চেয়ারম্যান হবার দাবী করতে পারি না তা হলে সারা জীবন দল করার কি অর্থ থাকতে পারে?
তিনি বলেন, সুনামগঞ্জের সবাই জানে, ৭৪ সালে ছাত্রলীগ করার কারনে প্রতিপক্ষের সন্ত্রাসীরা আমাকে জানে মেরে ফেলতে চেয়েছিল। জীবন মরন সন্ধিক্ষণে দীর্ঘ কয়েক মাস হাসপাতালে চিকিৎসা শেষে জখকের চিহ্ন নিয়ে আজো বেচে আছি। সাবেক মন্ত্রী। সুনাগঞ্জের মাটিও মানুষের নেতা মরহুম আব্দুস সামাদ আজাদ সে দিন আমাকে এয়ার এম্বুল্যান্সে ঢাকায় স্থানান্তরিত না করলে হয়তো বেচে থাকতাম কি না আল্লাহ জানেন। দুঃখ হয় প্রতিপক্ষ দলের যারা আমার মামলার আসামী ছিলো। যারা মামলায় জেল কেটেছে তারা আজ জেলা আওয়ামীলীগের নেতৃত্বে। দলের দুর্দিনে আমরা যারা জীবনের ঝুঁকি নিয়ে দলকে আগলে রেখেছিলাম বিনা অপরাধে আজ আমরা দল থেকে নির্বাসিত। দলের বিপক্ষে যারা ছিলো তারা আজ পুরুস্কিত। আমাদের হাটুর বয়স দলে যাদের হয়নি তারা আজ আমাদেরকে আদর্শ শিখাতে আসে।
আমির হোসেন রেজা আরো বলেন, বিএনপি শাসন আমলে ইউনিয়ন চেয়ারম্যান চিলাম। দলের নীতি আদর্শের সাথে বিশ্বাসঘাতকতা করিনি বলে, সরকারি দল বিএনপির রোষানলে পড়ে মেয়াদকালীন সময় পর্যন্ত্য দায়িত্ব পালন করতে দেয়া হয়নি।

বিগত ইউপি নির্বাচনে টাকা দিয়ে দলের প্রার্থী হতে হবে জেলা নেতাদের সেই আবদারের কারনে ক্ষোভে, দুঃক্ষে ও অভিমানে দলের কাছে মনোনয়ন চাইনি। সেই অপরাদে এবার আমাকে বিদ্রোহী প্রার্থীর অপবাদ দিয়ে প্রার্থী তালিকায় নাম রাখা হয়নি। তিনি বলেন, অতীতের মতো এবারো টাকার খেলা শুরু হয়েছে। দল করি দল যোগ্য মনে করলে প্রার্থী হবো। টাকা দিয়ে কখনো মনোনয়ন নিবো না সাফ জানিয়ে দিয়েছি।
তিনি বলেন, শুধু সুনামগঞ্জ সদর উপজেলায় নয়, জেলার প্রতিটি ইউনিয়নে ত্যাগী ও জনপ্রিয় দলীয় প্রার্থীদের বাদ দিয়ে অতীতের মতো জেলাকমিটি কেন্দ্রে তালিকা পাঠাচ্ছে বলে অভিযোগ আছে। জেলার প্রতিটি ইউপি নির্বাচনে এ কারনে এবার বিদ্রোহী প্রার্থীর সংখ্যা বাড়ছে। বঞ্চিতদের প্রতি দলের কঠোর নীতি। বিদ্রোহী প্রার্থীদের মনোনয়ন না দেয়া দলের জন্য বুমেরাং হচ্ছে বলে তিনি মনে করেন।
দল মনোনয়ন না দিলে দলের প্রার্থী হবেন কি না? এ প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, সারা জীবন দলের প্রতি আনুগত্য থেকেছি। বয়স হয়েছে আগামীতে আর নির্বাচন করতে পারবো কি না জানি। এখনো ভাবিনি কি করবো। এলাকাবাসীর মতামত নিয়ে সময়ে সিদ্ধান্ত নেবো। দলের কাছে চাওয়া পাওয়ার আর কিছু নাই। বঙ্গবন্ধুর আদর্শে বিশ্বাস করি। সে আদর্শ বুকে লালন করে মরতে চাই।

জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সবসময় আস্থাশীল। শেখ হাসিনাকে নেতা মানি বলে সবাইকে নেতা মানতে হবে তাদের ভুল সিদ্ধান্ত মাথা পেতে নিতে হবে সে নীতিতে বিশ্বাস করিনা।

পোস্টটি আপনার সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

Comments are closed.

এই ধরনের আরো সংবাদ দেখুন
© All rights reserved © 2021 দৈনিক দেশ বিদেশ
Design and developed By: Syl Service BD